সাবেক মেয়র বদর উদ্দিন আহমদ কামরান আর নেই                 লকডাউনের নির্দেশনা পায়নি প্রশাসন : রেড জোন সিলেট                 বীর মুক্তিযোদ্ধার মৃত্যুতে জেলা ইউনিট কমান্ড ও স্বেচ্ছাসেবক কমিটির শোক                 আজ থেকে খুলছে ১৮ মন্ত্রণালয়ের অফিস : কাজ চলবে সীমিত                 মহানগর যুবলীগের সম্পাদক মুশফিক জায়গীরদারের ইফতার বিতরণ                 ইনজেকশন পুশ করার ৩ ঘন্টার মধ্যে সুস্থ করোনা আক্রান্ত !                 খাদ্য সামগ্রী নিয়ে অসহায়দের পাশে বিএনপি নেতা ছাত্তার                
২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ ৬ই ডিসেম্বর, ২০২০ ইং রবিবার রাত ৪:৩৯ হেমন্তকাল

 

 

 

ভিন্ন মতাবলম্বী হলে কারও ওপর হামলা বৈধতা পায় না: কাদের

প্রকাশিত হয়েছে : ৩:০০:১২,অপরাহ্ন ২৩ ডিসেম্বর ২০১৯ |
এ সংবাদটি পড়া হয়েছে 144 বার
ভিন্ন মতাবলম্বী হলে কারও ওপর হামলা বৈধতা পায় না: কাদের

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদের (ডাকসু) ভিপি নুরুল হক নুরের ওপর হামলার প্রসঙ্গে ভিন্ন মতাবলম্বী হলেও কারও ওপর হামলা করা বৈধতা পায় না বলে মন্তব্য করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, ডাকসু ভিপির সঙ্গে ভিন্নমত থাকতেই পারে। তবে তার ওপর হামলার ঘটনা নিন্দনীয়। এ ঘটনায় যারাই জড়িত থাকুক না কেন, ছাত্রলীগের কেউ হলেও ছাড় দেওয়া হবে না।

সোমবার (২৩ ডিসেম্বর) দুপুর পৌনে ১টার দিকে সচিবায়ে নিজ মন্ত্রণালয়ে এক ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, গতকাল (রোববার) ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে যে ঘটনাটি ঘটেছে, তা অত্যন্ত নিন্দনীয়। আমি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে কথা বলেছি। এ ধরনের নিন্দনীয় ঘটনা যারা ঘটায়, তাদের অবশ্যই আইনের আওতায় আনা উচিত।

ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের অভিযোগ, ডাকসু ভিপি নুরসহ তার অনুসারীদের ওপর হামলা করেছে মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ ও ছাত্রলীগ। এমনকি মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চের নেতা ছাত্রলীগের পদধারী। এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে আওয়ামী লীগের নবনির্বাচিত এই সাধারণ সম্পাদক বলেন, কে কোন সংগঠন করে, সেটি বিবেচ্য নয়। আমরা অপকর্মকারীকে অপকর্মকারী হিসেবেই দেখব, অপরাধীকে অপরাধী হিসেবেই দেখব, দুর্বৃত্তকে দুর্বৃত্ত হিসেবে দেখব। যারা এগুলো করবে, তারা কেউ ছাড় পাবে না।

ওবায়দুল কাদের আরও বলেন, আওয়ামী লীগ সরকার অপরাধীদের কখনো ছাড় দেয় না। সরকারের ঘরের লোকদেরও কিন্তু রেহাই দেওয়া হয়নি। ফেনীর সোনাগাজীতে (মাদরাসা শিক্ষার্থী নুসরাতে আগুনে পুড়িয়ে হত্যা) কিংবা আবরারের (বুয়েট শিক্ষার্থী আবরারকে পিটিয়ে হত্যা) ঘটনা কিংবা রাজশাহীতে অধ্যক্ষকে অপদস্থ (রাজশাহী পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট) যারা করেছিল, তাদের মধ্যে আওয়ামী লীগ-ছাত্রলীগের কেউও ছাড় পায়নি। যেকোনো অপকর্মে ছাত্রলীগ পরিচয়ে কেউ থাকলেও ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে কাদের বলেন, আমরা নিজেরাও অনেক সময় স্বীকার করি, দলে অনুপ্রবেশকারী আছে, অবাঞ্ছিত ব্যক্তিরা ঢুকে পড়ে। তবে আমরা বিষয়গুলো খুব সিরিয়াসলি দেখছি। কে আওয়ামী লীগ, কে ছাত্রলীগ— কিছুই দেখা হবে না। অপরাধীকে শাস্তি পেতে হবে।

এর আগে, রোববার (২২ ডিসেম্বর) দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডাকসু ভবনে ডাকসু ভিপি নুরসহ তার অনুসারীদের ওপর হামলা চালানো হয়। ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের অভিযোগ, মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা তাদের ওপর হামলা চালিয়েছেন। এতে ভিপি নুরসহ তার অনুসারী বেশ কয়েকজন আহত হন। এ ঘটনায় আহত ২৪ জনকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়া হয়। এর মধ্যে ছয় জনকে ভর্তি রেখে চিকিৎসা দেওয়া হয়। রোববার রাতে তুহিন ফারাবিকে লাইফ সাপোর্টেও নেওয়া হয়। ঢামেক হাসপাতাল থেকে সোমবার সকালে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত ভিপি নুরসহ বাকি পাঁচ জনের শারীরিক অবস্থা এখন শঙ্কামুক্ত।

এদিকে, ভিপি নুরসহ অন্যদের ওপর হামলার বিচার চেয়ে রোববার সন্ধ্যায় ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম দিয়েছে প্রগতিশীল ছাত্রজোট। পরে সোমবার সারাদেশে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বিক্ষোভের ঘোষণা দেয় ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ।

সংবাদটি ভাল লাগলে শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  



AD

 

 

 

 

 

 

 

devolop ওয়েব হোম বিডি Mobile: 01711-370851